মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

সিটিজেন চার্টার

সিটিজেন চার্টার

১।আর্থ -সামাজিক উন্নয়ন ও সামাজিক সুরক্ষা কর্মসূচী (ভিজিডি)ঃ

 

       ভিজিডি কর্মসূচীর আওতায় দরিদ্র সীমার নীচে বসবাসকারী মহিলাদের জন্য নিরাপত্তাসহ প্রশিক্ষণ প্রদান ও আয়বর্ধক কর্মসূচীতে তাদের জড়িতকরণ ।এই কার্যক্রমের অধীনে ভিজিডি কার্ডধারী মহিলাদের ২ বছরের জন্য খাদ্য ও আর্থিক সুবিাধা  প্রধান করা হয় । আয়বর্ধক সচেতনতা বিষয়ক প্রশিক্ষণ দেয়া হয় । ভিজিডি চক্র শেষে প্রশিক্ষণ প্রাপ্ত মহিলাদের ঋণ সুবিধা প্রধান করা হয় ।

 

 

২। দরিদ্র মা’র জন্য মাতৃত্বকালীন ভাতা প্রদান কর্মসূচীঃ

        দরিদ্র মা’র জন্য ভাতা কর্মসূচীর অধীনে গ্রামের দরিদ্র গর্ভবতী মায়েদের মাসিক ৩৫০/-(তিনশত পঞ্চাশ) টাকা হারে ২ বছরে মেয় দে মাতৃত্বকালীন ভাতা প্রদান করা হয় ।এছাড়া সন্তান প্রসবের পর মা ও শিশুর স্ব্স্থ্য সেবার ব্যবস্থা করা হয়।

৩। ক্ষুদ্রঋন কাযৃক্রমঃ-

 দূঃস্থ অসহায় ও প্রশিইক্ষত নারীদের  আত্নকর্ম সংস্থানের লক্ষে ক্ষুদ্রঋন প্রধান করা হয়। এ কার্যক্রমের মাধ্যমে বিভিন্ন কর্মসূচির আওতায় ৫ থেকে ১৫  হাজার টাকা পর্যন্ত সহজ শর্তে ঋণ প্রদান করা হয়। ঋনের গ্রহিতাদের মূল টাকার সংগে শুধূমাত্র ৫% থেকে১০% হারে সাভির্জচার্জ প্রদান করা  হয়।

৪।বৃত্তিমূলক প্রশিক্ষন কার্যক্রমঃ-

বিভিন্ন ধরণের আয়বর্ধক বৃত্তিমূলক ও ব্যবহারিক প্রশিক্ষনের মাধমে মহিলাদের আত্নকর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা । উপজেলা  পর্যায়ে প্রশিক্ষন যেমন এমব্রোডারী ও সেলাই প্রশিক্ষন প্রদান করা ।

 

৫। নারী ও শিক্ষা নির্যাতন প্রতিরোধঃ-

মহিলা ও শিশুদের আইনগত সহায়তা প্রদানের লক্ষে উপজেলা পর্যায়ে গঠিত নারী ও শিশু নির্যাতন প্রতিরোধ কমিটি স্থানীয় ভাবে নারী ও শিশু নির্যতনমূলক অভিযোগের প্রেক্ষিতে প্রয়োজনীয় আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণের ব্যবস্থা  করা হয়ে থাকে।

৬। সেচ্ছাসেবী মহিলা সমিতি নিবন্ধনঃ

উন্নয়ন কর্মসূচীকে আরও ব্যাপক এবং মহিলা  জনগোষষ্ঠীরে মধ্যে সম্প্রসারণ  করার লক্ষে সেচ্ছাসেবী মvাহলা সংগঠন  সমূহের নিবন্ধন  প্রদান করা হয়।

৭।বাংলাদেশ মহিলা কল্যান পরিষদ (বামকপ)ঃ

মহিলাদের আত্নকর্মসংস্থান ও উন্নয়নের জন্য মহিলা  বিষয়ক অধিদপ্তর  নিবন্ধিত সক্রিয় মহিলা  সংগঠন সমূহকে আবেদনের ভিত্তিতে বছরে একবার সদর কার্যালয়ে আর্থিক আনুদান দেয়া হয়। এ সকল সমিতির আয়বর্ধক কার্যক্রমের ধরণ ও যোগ্যতা অনুসারে অনুদানের পরিমান নিধারিত হয়। উল্লেখ প্রতি বছর প্রতি জেলায় ২টি করে শ্রেষ্ঠ সমিতিকে বিশেষ অনুদান প্রদান করা হয়।

৮। সচেতনতা বৃাদ্ধ এবং  জেন্ডার সমতামূলক কার্যক্রমঃ-

নারী উন্নয়ন ও জেন্ডার সমতা আনয়নে বিভিন্ন জনসচেনতামূলক কার্যক্রম গ্রহণ যেমন, জাগরনী পধযাত্রা,যৌতুক ওবাল্য বিবাহ,যৌন হয়রানী প্রতিরোধ ,জম্ম নিবন্ধন ও বিবাহ নিবন্ধনে উদ্ভুদ্ধকরণ,এইচ,আই,ভী(এইডস) প্রতিরোধে সচেতনাতা বৃদ্ধিসহ নারী  অধিকার রক্ষায় CEDAW সনদ বাস্তবায়নসহ বিভিন্ন দিবস পালন করা হয়।


Share with :
Facebook Twitter